কোরবানির ঈদের আর বেশি বাকি নেই। করোনার কারণে এবার সীমিত পরিসরে বসবে কোরবানির পশুর হাট।

অনলাইনে জমে উঠেছে কোরবানির পশুর হাট। পরিবারের সবাইকে নিয়ে বেছে বেছে, দরদাম করে কেনার সুযোগ দিচ্ছে কয়েকটি অনলাইন।

কোরবানির পশুর ভার্চুয়াল হাটে নেই দালালদের দৌরাত্ম্য। পশুর বয়স, ওজনসহ ছবি, ভিডিও দেখে রয়েছে কেনাকাটার সুবিধা। অর্ডার দিলেই বাসায় পৌঁছে যাবে কোরবানির পশু।

জনপ্রিয় অনলাইন মার্কেটপ্লেস বিক্রয় ডটকম, অথবা ডটকম, প্রিয়শপ ডটকম, দেশিগরুবিডি ডট কমসহ বিভিন্ন ওয়েবসাইটে বসেছে ভার্চুয়াল কোরবানির পশুর হাট।

দেশিগরুবিডি ডট কম

কোরবানি পশুর ভার্চুয়াল হাটের আয়োজন করেছে দেশিগরুবিডি ডট কম (www.deshigorubd.com)।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী টিটো রহমান বলেন, দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে সম্পূর্ণ অর্গানিক গরু আমরা সংগ্রহ করছি। যারা বুকিং দিচ্ছেন, ঈদের দুদিন আগে তাদের বাসায় গরু পৌঁছে দেওয়া হবে।

প্রিয়শপ ডটকম

ই-কমার্স প্লাটফরম প্রিয়শপ ডটকম (www.priyoshop.com) আয়োজন করেছে অনলাইন কোরবানি হাট। প্রান্তিক খামারিদের কাছ থেকে সংগ্রহ করা গরু ও ছাগল দিয়ে অনলাইন কোরবানি হাট সাজিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

এখানে পশুর ছবিসহ দাম, উচ্চতা ও ওজন দেওয়া আছে। ক্রেতারা গরু পছন্দ করার পর বিকাশ, ডেবিট বা ক্রেডিট কার্ড, ব্যাংক ডিপোজিট, মোবাইল ব্যাংকিংয়ে মূল্য পরিশোধ করে তা নিশ্চিত করতে পারবেন। প্রবাসীরা পৃথিবীর যেকোনো প্রান্ত থেকে পছন্দের পশু কিনে ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে দাম পরিশোধ করলে বাংলাদেশে তাদের দেওয়া নির্ধারিত ঠিকানায় গরু পৌঁছে দেবে প্রিয়শপ।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আশিকুল আলম খান বলেন, গরুর ওজন অনুযায়ী কেজিপ্রতি দামের ভিত্তিতে ‘ফিক্সড প্রাইসে’ গরু বিক্রি করা হবে। কোরবানির পশু কেনা মাত্র ক্রেতাকে এসএমএস দিয়ে নিশ্চিত করা হবে। যারা বুকিং দিচ্ছেন, ঈদের এক/দু’দিন আগে তাদের বাসায় গরু পৌঁছে দেওয়া হবে।

ফুড ফর নেশন

ঈদুল আজহায় খামারি ও ক্রেতাদের স্বাস্থ্য নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে কোরবানির পশু ক্রয়-বিক্রয়ের জন্য ডিজিটাল হাটের ব্যবস্থা করেছে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ।

এ বিভাগের আওতায় বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের অধীনে উদ্ভাবন ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন একাডেমি প্রতিষ্ঠাকরণ প্রকল্প আইডিয়া এর আগে ‘ফুড ফর নেশন’ নামে একটি প্ল্যাটফর্ম গঠন করে। এরই আলোকে আইডিয়া প্রকল্পের ‘স্টার্টআপ বাংলাদেশ’ ব্যানারে ডিজিটাল হাটের উদ্যোগটি নেওয়া হয়েছে।

এ হাটে ক্রেতারা ঘরে বসেই গরুর ছবি ও ভিডিও দেখার এবং লাইভ ওজন জানার সুযোগ পাবেন। একই সঙ্গে খামারি বা ব্যাপারীদের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করার সুযোগ পাবেন গরু বিক্রেতা। এরপর নির্দিষ্ট স্থান থেকে অথবা হোম ডেলিভারির ভিত্তিতে অর্থের বিনিময়ে গরু সংগ্রহ করতে পারবেন।

এই ডিজিটাল হাটে (www.foodfornation.gov.bd/qurbani2020) কোরবানির পশু কেনাবেচা চলছে।

এ প্রসঙ্গে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, এটি কোরবানির পশুর জন্য দেশের সবচেয়ে বড় ম্যাচ মেকিং ডিজিটাল হাট হতে যাচ্ছে। খামারি ও চাষীদের অর্থনৈতিক ক্ষতি ও সবার স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য আমরা এ উদ্যোগ নিয়েছি। আমি সারাদেশের খামারি ও চাষীদের অনুরোধ করছি, আপনারা আপনাদের পশুর তথ্য নিয়ে এই প্লাটফর্মে আসুন। আমরা দেশের সবার স্বাস্থ্য সুরক্ষা অটুট রেখেই আমাদের অর্থনৈতিক ও ধর্মীয় কর্মকাণ্ড চালু রাখতে চাই।

ডিজিটাল হাট

ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে ভার্চুয়াল কোরবানির পশুর হাট চালু করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। ‘ডিজিটাল হাট’ (www.digitalhaat.net) নামের এ উদ্যোগ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ, ই-কমার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ ও বাংলাদেশ ডেইরি ফার্ম এসোসিয়েশন যৌথভাবে বাস্তবায়ন করছে।

ক্রেতারা চাইলে ডিজিটাল হাট থেকে ন্যায্যমূল্যে ক্রয়কৃত কোরবানির পশু ঢাকার পাঁচটি এলাকা থেকে মাংস প্রক্রিয়াকরণ করে নিজ নিজ ঠিকানায় ডেলিভারি নিতে পারবেন।

মেয়র আতিকুল ইসলাম জানান, ডিজিটাল হাটের আওতায় গরু বিক্রি ছাড়াও প্রায় ২ হাজার গরু জবাই করে এবং মাংস প্রক্রিয়া করে বাসায় পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা রেখেছি। ঈদের দিন ৪০০, দ্বিতীয় দিন এক হাজার ও তৃতীয় দিন ৬০০ গরু কোরবানি করার সক্ষমতা রয়েছে।

অথবা ডট কম

ঘরে বসেই ক্রেতার হাতে কোরবানির পশু পৌঁছে দিতে ‘অনলাইন কোরবানি মেলা’ চালু করেছে দেশের জনপ্রিয় ই-কমার্স সাইট ‘অথবা ডটকম’ (www.othoba.com)।

অথবা ডটকমে দেশি, ইন্ডিয়ান, নেপালি, অস্ট্রেলিয়ান, দেশি অক্সসহ প্রায় ১০ জাতের ৭৬ হাজার থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ৪ লাখ ৫০ হাজার টাকার গরু পাওয়া যাবে। এছাড়া ৯ হাজার টাকা থেকে শুরু করে বিভিন্ন দামে ছাগলও পাওয়া যাবে অনলাইন হাটে।

প্রতিষ্ঠানটি জানায়, পণ্য অর্ডার করতে হলে ক্রেতাদের ২০ শতাংশ অগ্রিম মূল্য পরিশোধ করতে হবে। ডেবিট কার্ড, ক্রেডিট কার্ড ও মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে মূল্য পরিশোধ করা যাবে।

সবজিবাজার ডটকম

অনলাইনে ‘গরু হাট’ নামে বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছে সবজিবাজার ডটকম (www.GoruHaat.com)।

প্রতিষ্ঠানটি প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহীন বলেন, করোনা ভাইরাস আমাদের স্বাভাবিক কাজকে স্থির করে দিয়েছে। কিন্তু কাজকে তো আর থামিয়ে রাখা যাবে না। ভাবতে হবে সঠিক সমাধান। ঝুঁকি নিয়ে হাটে না গিয়ে মানুষ যেন ঘরে বসেই কোরবানির সবকিছু করতে পারে তাই আমাদের এই অনলাইন হাটের আয়োজন।

তিনি বলেন, আমরা সঠিক সময়ের মধ্যেই ক্রেতার বাসায় কোরবানির পশু পৌঁছে দিবো। ক্রেতা চাইলেই আমরা ইসলামী শরিয়ার সব নিয়মনীতি মেনে গরু/ছাগল কোরবানি করে মাংস প্যাকেট করে বাসাই পোঁছে দিব।

বেঙ্গল মিট

প্রতিবারের মতো এবারও ভার্চুয়াল কোরবানির পশুর হাটের উদ্যোগ নিয়েছে বেঙ্গল মিট। এই হাট থেকে কোরবানির গরু বাছাই এবং অনলাইন পেমেন্টের মাধ্যমে কেনার সুবিধা পাওয়া যাবে।

ফলে প্রবাসী বাঙালিরাও এ সাইটে (www.qurbani.bengalmeat.com) গিয়ে প্রিয়জনের জন্য বিদেশ থেকে কোরবানির গরু অর্ডার করতে পারবেন।

দারাজ ডটকম ডটবিডি

কোরবানির পশু কেনাকাটার সুবিধার্থে দারাজ বাংলাদেশ (www.daraz.com.bd) তৃতীয়বারের মতো আয়োজন করেছে অনলাইন গরুর হাট।

এ হাটের বিশেষত্ব হলো- প্রতিটি গরু শতভাগ অর্গানিক এবং গরুগুলো লালন-পালন করেছেন শেরপুর, মুন্সিগঞ্জ, কুমিল্লা ও চট্টগ্রামের খামারি উদ্যোক্তারা। ৩৫০টি গরুর সমারোহে সাজানো এই হাটে রয়েছে ৭২ হাজার থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ৩ লাখ ৯৬ হাজার টাকার গরু।

দারাজ বাংলাদেশ লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর সৈয়দ মোস্তাহিদাল হক বলেন, অন্যবারের চেয়ে এই বছরের ঈদ আলাদা। কোভিড-১৯ চলাকালীন আমরা যথাসাধ্য চেষ্টা করছি ক্রেতাদের সুরক্ষিত রেখে চাহিদা মেটানো। এজন্যই অনলাইনে গরু হাটের আয়োজন। আশা করছি সবাই নিরাপদে ঘরে বসে আমাদের অর্গানিক গরুর  হাট থেকে কোরবানির পশু কিনে উপকৃত হবেন।

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here